JanaBD.ComLoginSign Up

Internet.Org দিয়ে ব্রাউজ করুন আমাদের সাইট ফ্রী , "জানাবিডি ডট কম"

ডিভোর্সি পুরুষকে বিয়ে করার আগে ৮ বার ভাবুন

লাইফ স্টাইল 27th Jun 2016 at 6:31pm 315
ডিভোর্সি পুরুষকে বিয়ে করার আগে ৮ বার ভাবুন

বিয়ে করতে চলেছেন।জীবনে একটু দেরি করেই নিয়েছেন সিদ্ধান্তটা। অথবা হতে পারে এটা আপনারও দ্বিতীয় বিয়ে। তো যাকে বেছেছেন বিয়ে করার জন্য তিনি ডিভোর্সি। সিনেমার অভিনেত্রীরা হামেশাই ডিভোর্সি পুরুষদের বেছে নিলেও সাধারণ ভাবে এই পরিস্থিতিতে বেশ কিছু দিক সম্পর্কে সতর্ক থাকা দরকার। পরিষ্কার করে নেওয়া উচিত কিছু প্রশ্নের উত্তরও। জেনে নিন কোন বিষয়গুলো মাথায় রাখবেন।

০১. ডিভোর্স: অনেক সময়ই বিচ্ছেদ হয়ে গেলেও অনেকে আইনি ঝামেলায় যেতে চান না। তাই অনেক ক্ষেত্রেই আইনি বিচ্ছেদ হয় না। এ ক্ষেত্রে কিন্তু দ্বিতীয় বিয়ে বেআইনি। তাই আগে নিশ্চিত হয়ে নিন ডিভোর্স হয়েছে কিনা।

০২. ডিভোর্সের কারণ: অনেক সময়ই ডিভোর্সের কারণ সম্পর্কে খোলাখুলি বলতে চান না। তিক্ত স্মৃতি বলে এড়িয়ে যান। আপনার সহানুভূতি পেতে অনেক কিছু লুকিয়ে নিজের দিক থেকে বলেন। তাই ডিভোর্সের প্রকৃত কারণ অবশ্যই অনুসন্ধান করুন।

০৩.আগের স্ত্রী: অনেক সময় ডিভোর্সের পরও আগের স্ত্রীর প্রতি কিছু টান থেকে যায়, অনেক সময় উনি বেরিয়ে আসতে চাইলেও স্ত্রী বেরোতে না পারার জন্য তার জীবনে নানা ভাবে সমস্যা তৈরি করতে পারেন। এমন কোনও সম্ভাবান রয়েছে কিনা তা আগে থেকে বুঝে নিন।

০৪. সন্তান: যাকে বিয়ে করতে চলেছেন তার যদি আগের বিয়ের সন্তান থেকে থাকে তাহলে কিন্তু পুরো সম্পর্কটাই অন্যভাবে দেখতে হবে আপনাকে। আগের স্ত্রীর সঙ্গে সম্পর্ক না থাকলেও সন্তানের সঙ্গে কিন্তু ওঁর সম্পর্ক আজীবন থাকবে।

০৫. আর্থিক দিক: একজন সিঙ্গল পুরুষের তুলনায় অনেক সময় ডিভোর্সি পুরুষের আর্থিক দায়িত্ব বেশি থাকে। বিশেষ করে যদি আগের স্ত্রীকে খোরপোশ দিতে হয়। আপনাকে ঠিক কতটা দায়িত্ব নিতে হবে, উনি কতটা আর্থিক দায়িত্ব নিতে পারবেন তা আগে থেকে বুঝে নিন।

০৬. এক্সট্রা ব্যাগেজ: ডিভোর্স কিন্তু একটা জটিল ও কষ্টদায়ক প্রক্রিয়া। আগের সম্পর্ক থেকে বেরিয়ে আসতে অনেকেরই সময় লাগে।বিয়ের সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে নিশ্চিত হয়ে নিন আপনার সঙ্গী এখনও আগের সম্পর্কের ক্ষত বয়ে বেড়াচ্ছেন না তো?

০৭. প্রত্যাশা: একেক জন ডিভোর্সি পুুরুষের পরিস্থিতি সামলানোর প্রক্রিয়া একেক রকম হয়। কেউ আগের ভুলগুলো সম্পর্কে সচেতন হন।কেউ আবার নতুন সম্পর্ক ধরে রাখতে বেশি পজেসিভ হয়ে পড়েন। আপনার সঙ্গীর প্রত্যাশা সম্পর্কে স্বচ্ছ ধারণা রাখুন।

০৮. প্রশ্ন: কেন আপনি একজনকে ডিভোর্সিকে বেছে নিলেন? কেন তার আগের বিয়ে টেঁকেনি? এ সব অনেক প্রশ্নের সম্মুখীন হতে হবে আপনাকে। উত্তরগুলো নিজের কাছে পরিষ্কার রাখুন। কী ভাবে সামলাবেন তার জন্য নিজেকে প্রস্তুত রাখুন।

Googleplus Pint
Mizu Ahmed
Manager
Like - Dislike Votes 4 - Rating 5 of 10
Relatedআরও দেখুনঅন্যান্য ক্যাটাগরি

পাঠকের মন্তব্য (0)