JanaBD.ComLoginSign Up
জানা হবে অনেক কিছু, চালু হয়েছে জানাবিডি (JanaBD) এন্ডয়েড এপস । বিস্তারিত জানুন..
Internet.Org দিয়ে ব্রাউজ করুন আমাদের সাইট ফ্রী , "জানাবিডি ডট কম"

৪২ বছরের মিসবাহ সম্পর্কে বিস্ময়কর কয়েকটি তথ্য

ক্রিকেট দুনিয়া 15th Jul 2016 at 12:39pm 459
৪২ বছরের মিসবাহ সম্পর্কে বিস্ময়কর কয়েকটি তথ্য

চল্লিশ পেরোলেই আলসে? না। মিসবাহ-উল হকের ক্ষেত্রে ৪০ পেরোনো সমস্যাগুলো সমস্যা হতে পারেনি মোটে। খুব কম মানুষই ৪০ পার হওয়ার পর শারীরিক দিক দিয়ে আরো উন্নতির দিকে এগিয়ে যেতে পারেন। পাকিস্তানের অধিনায়ক পেরেছেন। ৪২ বছর ৪৭ দিনে লর্ডসে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সেঞ্চুরি করেছেন। প্রথম দিনে অপরাজিত ১১০ রানে। ইতিহাসের ষষ্ঠ সর্বজ্যেষ্ঠ ব্যাটসম্যান হিসেবে এই সেঞ্চুরি।

মিসবাহর কয়েকটি বিস্ময়কর তথ্যে চোখ বুলিয়ে দেখুন.....

বয়সের সাথে ক্ষুরধার হয়ে ওঠা : ৪০ বছর বয়সের আগে মিসবাহর ব্যাটিং গড় ছিল ৪৮.৭৫। ৪৬ টেস্টে রান ছিল ৩২১৮। ৪০ এর জন্মদিনের মোমবাতি নেভানোর পর পরের ১৬ টেস্টে ৫৪.০৮ গড়ে ১২৪৪ রান করেছেন এই ব্যাটসম্যান। এর মধ্যে ৫টি সেঞ্চুরি। জোড়া সেঞ্চুরি আছে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে এক ম্যাচে। এর মধ্যে দ্বিতীয়টি ইতিহাসের দ্রুততম সেঞ্চুরির রেকর্ড স্পর্শ করা ছিল। ৫৬ বলে সেঞ্চুরি করেছিলেন। ব্রেন্ডন ম্যাককালাম পরে রেকর্ড ভেঙেছেন।

ইতিহাসের সর্বজ্যেষ্ঠ অধিনায়ক হিসেবে সেঞ্চুরি : মিসবাহ ৪২ বছর ৪৭ দিন চেয়ে বেশি বয়সে ক্রিকেট ইতিহাসে কোনো টেস্ট অধিনায়কের সেঞ্চুরি নেই। রেকর্ডটা এখন তারই। আগের রেকর্ডটি ছিল অস্ট্রেলিয়ার বব সিম্পসনের। ১৮৭৮ সালে অবসর থেকে ফিরে ৪১ বছর ৩৫৯ দিনে সেঞ্চুরি করেছিলেন।

ওহ ক্যাপ্টেন, মাই ক্যাপ্টেন : মিসবাহকে পাকিস্তানের অধিনায়ক ছাড়া ভাবা যায় না। তার খেলা ৬২ টেস্টের কেবল ১৯ ম্যাচে তিনি নেতৃত্ব দেননি। ২০১০ সালে স্পট ফিক্সিং কেলেঙ্কারিতে পাকিস্তানের ক্রিকেট যখন টলমল তখন অধিনায়ক করা হয় তাকে। নেতৃত্ব পাওয়ার পর তার টেস্ট ব্যাটিং গড় ৫৮.৫৪! আটটি সেঞ্চুরি করেছেন। পাকিস্তানকে তাদের সর্বোচ্চ দ্বিতীয় আইসিসি র‌্যাঙ্কিংয়ে নিয়েছেন।

ইংল্যান্ডে প্রথম টেস্ট : ২০০১ সালে টেস্টে অভিষেক মিসবাহর। কিন্তু নিয়মিত ছিলেন না। শেষ বয়সে নিয়মিত হয়েছেন। এই প্রথম ইংল্যান্ডে টেস্ট সিরিজ খেলছেন। অবশ্য ইংল্যান্ডে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি খেলার অভিজ্ঞতা আছে তার।

অর্ধেক বয়সীদের চেয়ে ফিট : সেঞ্চুরির পর মিসবাহর শক্তিশালী উদযাপনের মধ্যেও কিছু বার্তা ছিল। এখনো কি পরিমান ফিট তিনি তা বোঝা যায়। ইংল্যান্ড সফরের আগে বুট ক্যাম্প করেছে পাকিস্তান। সেখানে পুশ-আপ করতে হতো খুব। মিসবাহ একজন আর্মি ট্রেনারকে বলেছিলেন, পরের সেঞ্চুরিটা করার পর তিনি দশটি পুশ-আপ করবেন। কথা রেখেছেন। ওই ক্যাম্পে ফিটনেস টেস্টে নিজের অর্ধেক বয়সীদের চেয়েও অনেক এগিয়ে ছিলেন মিসবাহ।

জানা হবে অনেক কিছু, চালু হয়েছে জানাবিডি (JanaBD) এন্ডয়েড এপস । বিস্তারিত জানুন..

Googleplus Pint
Like - Dislike Votes 10 - Rating 5 of 10
Relatedআরও দেখুনঅন্যান্য ক্যাটাগরি

পাঠকের মন্তব্য (0)