JanaBD.ComLoginSign Up

গণধর্ষণের শিকার হলেন ক্লাবের নর্তকী

আন্তর্জাতিক 15th Aug 2016 at 5:11pm 527
গণধর্ষণের শিকার হলেন ক্লাবের নর্তকী

হোটেলে শো করতে গিয়ে গণধর্ষণের শিকার হলেন বছর পঁচিশের তরুণী। ঘটনায় গ্রেপ্তার এক আয়ুর্বেদিক সংস্থার চার আধিকারিক। নিয়ম ভেঙে রাতে নাচের অনুষ্ঠান করার জন্য গ্রেপ্তার হোটেল ম্যানেজারও।

রবিবার লখনউয়ের কাছে বানথারা এলাকার এক হোটেলের ঘরে এক নর্তকীর শ্লীলতাহানি করে চারজন। অভিযোগের ভিত্তিতে এক আয়ুর্বেদিক ওষুধ সংস্থার ৪ উচ্চপদস্থ কর্মীকে গ্রেপ্তার করে নিজেদের হেফাজতে নিয়েছে পুলিশ। আইন অমান্য করে গভীর রাত পর্যন্ত ডান্স পার্টি আয়োজন করার কারণে গ্রেপ্তার করা হয়েছে ওই হোটেলের ম্যানেজারকে। সোমবার তাদের আদালতে হাজির করা হলে বিচারকের নির্দেশে জেল হেফাজতে পাঠানো হয়।

ধৃত আয়ুর্বেদিক ওষুধ প্রস্তুতকারী সংস্থার শীর্ষ স্থানীয় কর্মী সত্যবীর সিং, দেবরাজ সিং, রাষ্ট্রীয় ভূষণ ভারতী ও পরেশ তোমর, এবং হোটেল ম্যানেজার সৌরভ সাচার- সকলের বয়সই ৩০-এর কোঠায় এবং প্রত্যেকেই লখনউয়ের বাসিন্দা। ঘটনার জেরে দায়ের করা এফআইআর অনুযায়ী, লখনউয়ের ইন্দিরানগরে এক ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট সংস্থার কর্ণধার ওই নর্তকীকে রবিবার রাতে নাচের অনুষ্ঠানের বরাত দেন ওই এলাকারই বাসিন্দা সত্যবীর সিং। আশফাক নামে এক পরিচিতের মাধ্যমে তরুণীর সঙ্গে যোগাযোগ করেন সত্যবীর।

ওই রাতের অনুষ্ঠানে নিগৃহীতা তরুণী ছাড়াও আরও দুই নর্তকী অংশগ্রহণ করেন। গভীর রাত পর্যন্ত অনুষ্ঠান চলে। অভিযোগ, রাত দেড়টা নাগাদ তরুণীকে এক সহ-নর্তকী জানান, চার মদ্যপ যুবক তাঁকে যৌন হেনস্থার চেষ্টা করছে। সঙ্গে সঙ্গে ব্যাগ গুছিয়ে হোটেল ছাড়ার তোড়জোড় করলে আশফাক এসে জানায়, অনুষ্ঠান বাবদ পেমেন্ট নিয়ে সত্যবীর কথা বলতে চাইছেন। সত্যবীরের ঘরে ওই তরুণী পৌঁছনোর পরে দরজা বন্ধ করে দেওয়া হয়। এরপর বন্দুক তাক করে তরুণীকে একের পর এক ধর্ষণ করে চার দুষ্কৃতী।

ঘটনার পরে বানথারা থানায় অভিযোগ দায়ের করেন নিগৃহীতা। ইনস্পেক্টর সঞ্জয় খারওয়ার তরুণীর অভিযোগ পেয়ে তা এসএসপি লখনউ মঞ্জিল সাইনিকে জানান। এসএসপি-র নির্দেশে ঘটনার তদন্তে নামে বিশেষ দল। সাইনি জানিয়েছেন, 'মোবাইল ফোন নম্বর অনুসরণ করে চার দুষ্কৃতীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।'

রবিবার দুপুরে মোহনলালগঞ্জ থেকে চার অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। পরে গ্রেপ্তার করা হয় হোটেল ম্যানেজারকেও।

তথ্যসূত্রঃ আনন্দবাজার

Googleplus Pint
Like - Dislike Votes 4 - Rating 5 of 10
Relatedআরও দেখুনঅন্যান্য ক্যাটাগরি

পাঠকের মন্তব্য (0)