JanaBD.ComLoginSign Up

Internet.Org দিয়ে ফ্রিতে ব্রাউজ করুন আমাদের সাইট :) Search করুন , "জানাবিডি ডট কম" পেয়ে যাবেন ।

নগ্ন মডেলদের পোশাক বদলের কক্ষে ঢুকে পড়তেন ট্রাম্প

আন্তর্জাতিক 13th Oct 2016 at 2:07pm 781
নগ্ন মডেলদের পোশাক বদলের কক্ষে ঢুকে পড়তেন ট্রাম্প

২০০৫ সালে ১১ এপ্রিলের একটি ঘটনা। হাওয়ার্ড স্টার্নের রেডিও টকশোতে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প কিছু কথা বলেন, যা নতুন করে তাঁর বিরুদ্ধে সমালোচনার জন্ম দিয়েছে।

সেই টকশোতে রিপাবলিকান দল মনোনীত ট্রাম্প বলেন, ‘অনুষ্ঠানের আগে আমি মঞ্চের পেছনে যাব এবং দেখব সবাই পোশাক পরছে, প্রস্তুত হচ্ছে, সবকিছু্ই দেখব।’ তিনি বলেন, ‘আর আপনি জানেন, কোনোখানে কোনো পুরুষ নেই। আর প্রতিযোগিতার আমি যেহেতু মালিক, সব জায়গায় আমার যাওয়ার অনুমতি আছে এবং আমি এটা পরিদর্শন করি।’ এরপর হাওয়ার্ড স্টার্ন বলেন, ‘আপনি ডাক্তারের মতো।’

ট্রাম্প প্রতিউত্তর দেন : ‘সব কি ঠিক আছে? আপনি জানেন, তারা সেখানে কোনো কাপড় পরে ছিল না। আর দেখেন অবিশ্বাস্য চেহারার নারীরা সেখানে।’

লস অ্যাঞ্জেলেসভিত্তিক টিভি স্টেশন সিবিএস ২ বিষয়টি যাচাই করতে সাবেক মিস অ্যারিজোনা টাশা ডিক্সনের সঙ্গে যোগাযোগ করে। তিনি ২০০১ সালে অ্যারিজোনার সেরা সুন্দরী নির্বাচিত হন। ডিক্সন বলেন, যখন প্রতিযোগীরা নগ্ন, আধা নগ্ন বা পোশাক বদল করছিলেন তখন ট্রাম্প তাঁদের কক্ষে প্রবেশ করেন।

বাজফিড নামের একটি সাময়িকী জানিয়েছে, ১৯৯৭ সালে মিস টিন ইউএসএ সুন্দরী প্রতিযোগিতায় পোশাক বদলের কক্ষে ঢুকে পড়েন ট্রাম্প।

প্রতিযোগীদের মধ্যে ১৫ বছর বয়সী কিশোরীও ছিল। ওই প্রতিযোগীদের মধ্যে চারজন কথা বলেছেন বাজফিডের সঙ্গে। নাম প্রকাশের অনুমতি দিয়ে মারায়া বিলাডো বলেন, ‘আমি মনে করতে পারছি, আমি দ্রুত পোশাক পরছিলাম, হায় ঈশ্বর! আমি সেখান একজন পুরুষকে দেখেছিলাম।’ মারায়া মিস ভারমন্ট টিন ইউএসএ নির্বাচিত হয়েছিলেন।

এদিকে, সিবিএস ২-কে টাশা ডিক্সন ও অন্যরা কাপড় পরার সময় কক্ষে ট্রাম্পের ঢুকে পড়ার অভিজ্ঞতার কথা জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘তিনি ধীরে হাঁটতে হাঁটতে ভেতরে চলে এলেন। গাউন বা কোনো ধরনের কাপড় পরার জন্য আমরা একটা সেকেন্ডও সময় পাইনি। কোনো কোনো মেয়ের ওপরে কাপড় ছিল না। অন্যরা নগ্ন ছিল।’

ডিক্সন বলেন, ‘তাঁর (ট্রাম্প) সঙ্গে আমাদের প্রথম পরিচয় হয় পোশাক বদলের ঘরে অথবা বিকিনি পরা অর্ধনগ্ন অবস্থায়।’ তিনি বলেন, ‘আমরা যখন নগ্ন, অর্ধ নগ্ন, শারীরিকভাবে ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় থাকি, তখনই আমরা মালিককে (ট্রাম্প) ভেতরে আসতে দেখি।

আর তাঁর লোকজন আমাদের বলত, তাঁর কাছে ঘেষতে, তাঁর সঙ্গে হাঁটতে, কথা বলতে এবং তার মনোযোগ কাড়তে।’ তিনি বলেন, এসব সুযোগ নেওয়ার কারণেই ট্রাম্প এই প্রতিযোগিতার মালিক হতেন।

সূত্রঃ এনটিভি অনলাইন

Googleplus Pint
Mizu Ahmed
Manager
Like - Dislike Votes 4 - Rating 5 of 10
Relatedআরও দেখুনঅন্যান্য ক্যাটাগরি

পাঠকের মন্তব্য (0)