JanaBD.ComLoginSign Up

ঝগড়ার মাঝে যে কথা বলা মানা

লাইফ স্টাইল 12th Nov 2016 at 10:25pm 500
ঝগড়ার মাঝে যে কথা বলা মানা

একটি দারুণ সম্পর্কের মাঝেও প্রায়ই খুনসুটি হতে পারে। তবে ঝগড়ার সময় কিছু কথা পুরোপুরি এড়িয়ে চলা উচিত।

মাঝে মধ্যে হালকা ঝগড়া সম্পর্ককে আরও পাকাপোক্ত করে। তবে রাগের মাথায় বলা কথা সঙ্গীর মনে আঘাত দিতে পারে অনেকটাই। তাই যত রাগই হোক মুখ ফসকে কিছু কথা কখনও বলা উচিত নয়।

এমনই কিছু দিক তুলে ধরা হয় একটি সম্পর্কবিষয়ক ওয়েবসাইটের প্রতিবেদনে।

সব তোমার দোষ: ঝগড়ার সময় একে অপরকে দোষারোপ করা খুবই সাধারণ ঘটনা। আর এতে সমস্যা আরও ঘোলাটে হয়ে যায়। আরেকজনের উপর দোষ চাপানোর বদলে মূল সমস্যা সমাধানের চেষ্টা করা উচিত। এক্ষেত্রে সমস্যার সূত্রপাত কোথায় সেটা খুঁজে বের করতে হবে। পাশাপাশি সঙ্গীর কোন ব্যবহার খারাপ লাগছে সেই বিষয়গুলো নিয়েও আলাপ করে মিটিয়ে নিতে হবে ওই সময়ই।

‘তুমি আগেও একই কাজ করেছিলে’: সঙ্গী কবে কী ভুল করেছিল তা পুনরায় টেনে নিয়ে আসা মোটেও বুদ্ধিমানের কাজ নয়। আপনার কোনো ভুলের কারণে যদি ঝগড়া শুরু হয় সঙ্গী যদি একই ভুল আগে করে থাকে তাও নতুন করে তুলে ধরা ঠিক নয়। বরং এই বিষয়গুলো সমঝতার মাধ্যমে মিটিয়ে নেওয়া উচিত। আর পুরানো ঝগড়ার কারণ তুলে আনা মানে আগে ওই জিনিসগুলো মিটমাট হয়নি। তাই কোনো ঝগড়াই পুরোপুরি না মিটিয়ে মনে পুষে রাখা ঠিক নয়।

‘আমি এই সম্পর্ক রাখতে চাই না’: সম্পর্ক ভেঙে দিতে চাওয়াও ঝগড়ার মোড় খারাপের দিকে ঘুরিয়ে দিতে পারে। একবার মুখ ফসকে এ ধরনের কথা বের হয়ে গেলে পরে যতবারই ‘সরি’ বলুন না কেনো, ওই বিষয়গুলো সঙ্গীর মনে গেঁথে যেতে পারে। তাই যতই রেগে থাকুন না কেনো এই ধরনের কথা কখনও বলা ঠিক নয়।

ব্যক্তিত্বে আঘাত দিয়ে কথা বলা: একজন মানুষের ব্যক্তিত্ব নিয়ে কথা বলা খুবই অপমানজনক। যত আপন মানুষই হোক না কেনো, এ ধরনের কথা বলা খুবই ক্ষতিকর। এতে সম্পর্কে বড় ধরনের ফাটল ধরতে পারে।

‘আমি এখনই কথা বলতে চাই’: এই বাক্যটি উত্তপ্ত পরিস্তিতিতে তাপমাত্রা আরও বাড়িয়ে দিতে পারে। কারণ সঙ্গী যদি কথা বলতে না চায় তার মানে সে মাথা গরম অবস্থায়[/b] কোনো বেফাঁস কথা বলে পরিস্থিতি আরও ঘোলাটে করতে চাইছে না। সেক্ষেত্রে জোর করে কথা বলতে চাইলে ঝগড়া মিটমাট হওয়ার বদলে সমস্যা আরও বেড়ে যেতে পারে।

একসঙ্গে দুটি মানুষ থাকলে টুকটাক ঝগড়া হতেই পারে। তার মানে এই নয় ওই ঝগড়া ধরে বসে থাকতে হবে। ঝগড়া মিটিয়ে নেওয়া উচিত তখনই। আর ঝগড়া মিটিয়ে নিতে এসব বিষয় মাথায় রাখা খুবই জরুরি।

Googleplus Pint
Like - Dislike Votes 4 - Rating 5 of 10
Relatedআরও দেখুনঅন্যান্য ক্যাটাগরি

পাঠকের মন্তব্য (0)