JanaBD.ComLoginSign Up

ফেইসবুকের ভুয়া খবর বন্ধ করা কিভাবে সম্ভব?

ইন্টারনেট দুনিয়া 21st Dec 2016 at 7:37pm 174
ফেইসবুকের ভুয়া খবর বন্ধ করা কিভাবে সম্ভব?

ফেইসবুকে প্রতিদিনই আমরা কতো শতো খবর দেখি। নিউজ ফিডে শেয়ার করা হয় এরকম হাজার হাজার খবর। কিন্তু কোন খবরটা সত্য আর কোনটা মিথ্যা-আমরা ঠিক বুঝে উঠতে পারি না।

যুক্তরাষ্ট্রে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের সময় কয়েকজন ফেইসবুক ব্যবহারকারী অভিযোগ করেন, সামাজিক যোগাযোগের বৃহত্তম এই সাইটটিতে ছড়িয়ে পড়া মিথ্যা খবর নির্বাচনকে প্রভাবিত করেছে। এর ফলে প্রচুর সমালোচনাও হয়েছে ফেইসবুকের।

ফেইসবুকে এধরনের ভুয়া কিংবা উড়ো খবর ছড়িয়ে পড়া বন্ধ করতে ফেইসবুক কর্তৃপক্ষ নতুন কিছু ব্যবস্থা গ্রহণের কথা ঘোষণা করেছে। এজন্যে ফেইসবুক যে প্রযুক্তিতে চলে তাতে কিছু পরিবর্তন আনার উদ্যোগ নেওয়ার কথাও বলা হচ্ছে।


ছবি : রয়টার্স

এর মধ্যে রয়েছে ফেইসবুকের এলগরিদমে কিছু পরিবর্তন আনা। কর্মকর্তারা বলছেন, এর ফলে মিথ্যা খবর চিহ্নিত করা সম্ভব হবে।

তবে মার্ক জাকারবার্গ বলেছেন, ভুয়া খবর ফেইসবুকের খুবই ক্ষুদ্র একটি অংশ।

প্রতিষ্ঠানটির পক্ষ থেকে দেওয়া এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, মানুষ যাতে কথা বলতে পারে আমরা এই নীতিতে বিশ্বাস করি। আমরা কোনো কিছুর উপর পূর্ণ নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠা করতে চাই না।

এরই অংশ হিসেবে ফেইসবুকে নতুন একটি ফিচার সংযোজন করা হয়েছে।

ফিচারটি হলো : ‘ইটস এ ফেইক নিউজ স্টোরি’ বা ‘এটি একটি মিথ্যা সংবাদ।’ এই অপশনে ক্লিক করে আপনি ফেইসবুক কর্তৃপক্ষের কাছে চাইলে সেই সংবাদটি সম্পর্কে রিপোর্ট করতে পারবেন। আর সেই অপশনে ‘বিতর্কিত খবর’ এই লেবেলও থাকবে।

এসব অপশনে ক্লিক করলে ওই খবর চলে যাবে তৃতীয় একটি পক্ষের কাছে। ওই পক্ষটি এসব খবরের সত্য মিথ্যা যাচাই করবে।
আর সেটা করা হবে সুনির্দিষ্ট কিছু নীতিমালার ভিত্তিতে।

তবে সেই যাচাই-বাছাই করা হবে কোন বিষয়ের ওপর ভিত্তি করে, সেটা আদৌ সবাই মেনে নেবেন কিনা এ সম্পর্কে কোনো কথা বলা হয়নি।
মিথ্যা খবরের প্রচার ঠেকাতে ফেসবুকের উদ্যোগ সম্পর্কে আয়ারল্যান্ডে, ইউনিভার্সিটি কলেজ ডাবলিনে স্যোশাল মিডিয়া গবেষক এবং আপটাম ইউনাইটেড হেলথ গ্রুপের ড্যাটা সায়েন্টিস্ট ড. নাসিম মাহমুদ বিবিসিকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে বলেন, ফেইসবুকে যে ফেইক নিউজ বা ভূয়া খবর বা বানোয়াট খবর তা তাদের জন্য যতোটা না সমস্যা তার চেয়ে বড় সমস্যা বড় বড় মিডিয়া কোম্পানির জন্য। যারা খবর তৈরি করে বা বানায়। আর ফেইসবুকের জন্য এটা একটা রেপুটেশন ক্রাইসিস।

তিনি বলেন, এটা এর আগেও হয়েছে। কিন্তু তা তেমন করে প্রকাশ পায়নি। এটা প্রকাশ পেয়েছে মূলত আমেরিকার নির্বাচনের সময়।

এধরনের বানোয়াট খবর বিভিন্ন ভাবে চিহ্নিত করা সম্ভব বলে বলেন এই গবেষক। তিনি বলেন, কৃত্তিম বুদ্ধিমত্তা, নিজস্ব অ্যালগরিদম আবার তৃতীয় পক্ষ রেখে তাদের মাধ্যমে নজরদারি করে এসব ভুয়া খবর চিহ্নিত করা সম্ভব।

তবে এসব ভুয়া খবর আদৌ ‘ভুয়া’ কিনা তা নির্বাচন নিয়ে প্রশ্ন উঠতে পারে। যেটা একজনের কাছে বানোয়াট মনে হচ্ছে তা অন্যজনের কাছে ঠিক মনে হতে পারে। এজন্য বিষয়টিকে খুবই গুরুত্বের সঙ্গে দেখা দরকার বলেও মনে করেন তিনি।

তবে নতুন এই ফিচারে ব্যবহারকারীরা এখন খবর বানোয়াট মনে করলে রিপোর্ট করতে পারবেন।

ফেইসবুক বলছে, তাদের পরীক্ষা নিরীক্ষার পর কোন সংবাদ ফেইক নিউজ বা মিথ্যা খবর বলে প্রমাণিত হলেও সেটা ফেইসবুকে থাকবে, তবে খুবই গুরুত্বহীনতার সাথে। তবে সেটা ভুয়া খবর হিসেবে চিহ্নিত করে দেওয়া হবে। তার সাথে ‘কেনো মিথ্যা’ সেটারও ব্যাখ্যা থাকবে।

আর বিতর্কিত খবরের ব্যাপারেও ফেসবুক ব্যবহারকারীদের সতর্ক করে দেওয়া হবে বলে জানিয়েছে এই সামাজিক নেটওয়ার্ক।

বিবিসি বাংলা থেকে

Googleplus Pint
Like - Dislike Votes 11 - Rating 4.5 of 10
Relatedআরও দেখুনঅন্যান্য ক্যাটাগরি

পাঠকের মন্তব্য (0)