JanaBD.ComLoginSign Up

বাগদত্তাকে ধর্ষণ, যুবলীগ নেতার ছেলের বিরুদ্ধে মামলা

দেশের খবর Fri at 3:00pm 104
বাগদত্তাকে ধর্ষণ, যুবলীগ নেতার ছেলের বিরুদ্ধে মামলা

রাজশাহীর মোহনপুর উপজেলায় স্থানিয় যুবলীগ নেতার ছেলের বিরুদ্ধে বাগদত্তাকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। এনিয়ে ধর্ষিতা ওই ছাত্রীর পরিবার বৃহস্পতিবার রাতে থানায় মামলা দায়ের করেছে।

অভিযুক্ত সাজ্জাদ হোসেন (২৫) উপজেলার কেশরহাট পৌর যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুস সাত্তার মন্ডলের ছেলে।

আব্দুস সাত্তার পৌর এলাকার বাকশৈল মহল্লার বাসিন্দা। তিনি ওই ওয়ার্ডের সাবেক কাউন্সিলর।

ঘটনার পর থেকেই তার ছেলে সাজ্জাদ হোসেনের হদিশ পাচ্ছে না পুলিশ। এছাড়া শুক্রবার ধর্ষণের শিকার ওই ছাত্রীকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের ওয়ানস্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) নেয়া হয়েছে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা ও মোহনপুর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মামুনুর রশিদ জানান, রাতে মামলাটি রেকর্ড হয়েছে। এরপর থেকেই প্রধান অভিযুক্তকে গ্রেফতারের চেষ্টা করছে পুলিশ। কিন্তু তিনি পলাতক থাকায় গ্রেফতার করা যাচ্ছে না। এনিয়ে আইনত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলে জানান এসআই মামুনুর রশিদ।

অভিযোগের বরাত দিয়ে মোহনপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এসএম মাসুদ পারভেজ জানান, একই উপজেলার চকআলম গ্রামের জনৈক ব্যক্তির মেয়ের সঙ্গে আব্দুস সাত্তারের ছেলে সাজ্জাদ হোসেনের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। প্রায় সাত মাস আগে দুই পরিবারের সম্মতিতে বিয়ের দিন ধার্য করা হয়। আব্দুস সাত্তার বাগদানও সম্পন্ন করেন।

বাগদত্তা ওই মেয়ে এবারের এসএসসি পরীক্ষা দিয়েছে। ওই সময় আব্দুস সাত্তারের ছেলে সাজ্জাদ হোসেন তাকে পরীক্ষার দিনগুলোতে কেন্দ্রে পৌঁছে দিতেন। সেখান থেকে ওই মেয়েকে সঙ্গে নিয়ে তার বাড়িতেও যেতেন। সেখানে প্রতিদিনই ওই মেয়ের সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কে জড়াতেন সাজ্জাদ।

সম্প্রতি বিয়ের জন্য সাজ্জাদ দশ লাখ টাকা যৌতুক দাবি করে বসেন। যৌতুক না পেলে বিয়ে করবে না বলে জানিয়ে দেন তিনি। বিষয়টি স্থানীয়ভাবে মিটমাট করতে গিয়ে ব্যর্থ হন মেয়ে পক্ষ।

ঘটনার শিকার ওই মেয়ের পরিবার জানিয়েছে, স্থানীয়ভাবে বিষয়টি নিষ্পত্তি করতে বসলেও দাপট দেখিয়ে তা অগ্রাহ্য করেন যুবলীগ নেতা সাত্তার। ওই মেয়ের সঙ্গে ছেলের বিয়ে দেবেন না বলেও জানিয়ে দেন। ফলে বাধ্য হয়ে আইনের আশ্রয় নেন তারা।

Googleplus Pint
Noyon Khan
Manager
Like - Dislike Votes 2 - Rating 5 of 10
Relatedআরও দেখুনঅন্যান্য ক্যাটাগরি

পাঠকের মন্তব্য (0)