JanaBD.ComLoginSign Up

ক্যাডার মফিজ

হাসির গল্প 17th Apr 16 at 10:56pm 715
ক্যাডার মফিজ

এক গ্লাস আদা-জল নিয়ে সুয্যিমামা জাগার আগেই মফিজ পড়তে বসেছে। বিসিএস ক্যাডার হবে-এ তার আজন্ম স্বপ্ন। এলাকায় অলরেডি তার নামই হয়ে গেছে ‘ক্যাডার মফিজ’। প্রিলিমিনারী পরীক্ষায় অকৃতকার্যতায় হ্যাট্রিক করার পর চতুর্থবারে সে পাশ করেছে। সামনে লিখিত পরীক্ষা। সেজন্য আদা-জল খেয়ে পড়ালেখা শুরু!

পরীক্ষার ভুবনে প্রেম গদ্যময়। তাই মফিজ তার প্রেমকে ফ্রেমবন্দী করে, হৃদয়ে পাথর বেঁধে লেখাপড়ায় মন দিয়েছে। কত্ত কিছু জানার আছে! ‘মুক্তবাজার’ যে মুক্তোর বাজার নয়; আমাদের দেশের ‘গোল্ডেন ভিলেজ’ যে গোল্ডের ভিলেজ নয়, গাঁজা উৎপাদনের গ্রাম; ‘এগপ্ল্যান্ট’ যে ডিমের গাছ নয়-এসব তো মফিজ আগে জানত না।

তবে মাঝেমাঝে পড়ার প্রেশারে অভিমানী সুরে সে গেয়ে ওঠে, ‘এত পড়া সইব কেমন করে?’ তখন ভাবে, প্রশ্নপত্র ‘ফাঁস’ না হয়ে যদি ‘গুম’ হওয়ার রীতি থাকত, তবে কতই না ভালো হতো! দাগী আসামিরাও কারাগার থেকে মুক্তি পায়; অথচ পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা থেকে মুক্তি নেই!

পরীক্ষার হলে গেলেই মফিজের মনে হয় কেউ যেন তার ব্রেন ফরম্যাট করে ফেলেছে। সেসময় সে কিছুই মনে করতে পারে না। একদিকে মাথা হালকা হয়, আর অন্যদিকে তলপেট ভারী হয়ে আসে! আজ প্রথম লিখিত পরীক্ষার প্রশ্নপত্র দেখে বেচারা আরও একবার টের পেল, ‘পারা আর না পারার মধ্যে যোজন যোজন দূর’!

এদিকে পরীক্ষা শুরুর ঘণ্টা পড়তেই মফিজকে প্রকৃতি ডাকাডাকি শুরু করেছে। তবে বেচারা আজ দৃঢ়প্রতিজ্ঞ; শারীরিক সমস্যা সে শারীরিকভাবেই মোকাবিলা করবে। কিন্তু শেষমেশ পেরে উঠল না। দৌড়াল টয়লেটের দিকে। এই পরীক্ষাকেন্দ্রে একটিমাত্র টয়লেট এবং সেই টয়লেটের রয়েছে সুন্দর একটি নাম: ‘প্রসাধনী’। সপ্তাহব্যাপী চলা লিখিত পরীক্ষার মোট সময়ের এক-তৃতীয়াংশই মফিজ এই প্রসাধনী কক্ষে কাটাল!

ঘটনা ঘটল শেষ পরীক্ষার দিন। বলা প্রয়োজন, ইতিমধ্যে মফিজের প্রেমিকা তার বাবার কাছে ধরা খেয়েছে। ভদ্রলোক মফিজের বৃত্তান্ত নিয়ে একদিন মফিজদের এলাকায় চলে এলেন। এক কিশোরকে জিজ্ঞেস করলেন, ‘অ্যাই ছেলে, মফিজ নামে কেউ থাকে এখানে?’

ছেলেটি অত্যন্ত বিনয়ের সঙ্গে জানাল, ‘জি আঙ্কেল, থাকেন। ক্যাডার মফিজ ভাইকে এই এলাকার সবাই চেনে।’

‘ক্যাডার!’

‘জি। উনি একজন সম্মানিত ক্যাডার। ওই তো উনি আসছেন।’

মফিজ শেষ লিখিত পরীক্ষা দিয়ে ফিরছিল। আগেও দূর থেকে দেখেছে বলে হবু শ্বশুরকে চিনতে তার কষ্ট হলো না। বিসিএস পরীক্ষা দিয়ে ফিরছে-এটা গর্বের সঙ্গে বলার জন্যই ভাবাবেগে সে প্রেমিকার বাবার দিকে দৌড়ানো শুরু করল। এলাকার ক্যাডার তার দিকে ছুটে আসছে দেখে ভদ্রলোকও হঠাৎ হতচকিত হয়ে উল্টো ঘুরে দৌড় দিলেন। পথের মানুষজন চেয়ে চেয়ে দেখল, ‘নীল আকাশের নিচে দুজন রাস্তায় চলেছে দৌড়িয়ে’!

এই ‘ক্যাডার’ বিষয়ক ভুল বোঝাবুঝি নিরসনে সময় লেগে গেল প্রায় এক মাস। কিছুদিন হলো মফিজের সঙ্গে তার হবু শ্বশুরের সম্পর্কোন্নয়ন হয়েছে। তিনিও নাকি বিসিএস ক্যাডার হতে চেয়েছিলেন। পড়াশোনার প্রতি ছেলের আগ্রহ দেখে তিনি বেশ খুশি। তবে মফিজের সিক্সথ সেন্স বলছে, এবারও সে ক্যাডার হতে পারবে না। তাই এরপরের বিসিএস পরীক্ষার জন্য লবঙ্গ-জল খেয়ে সে পড়াশুনায় লেগেছে। মফিজের জন্য শুভকামনা।

Googleplus Pint
Jafar IqBal
Administrator
Like - Dislike Votes 18 - Rating 5 of 10
Relatedআরও দেখুনঅন্যান্য ক্যাটাগরি
সেদিনেরটা ছিল আজকের জন্য - নাসিরউদ্দিন হোজ্জার গল্প সেদিনেরটা ছিল আজকের জন্য - নাসিরউদ্দিন হোজ্জার গল্প
Aug 30 at 9:25am 1,542
আজ যে ভীম একাদশী  - গোপাল ভাঁড়ের গল্প আজ যে ভীম একাদশী - গোপাল ভাঁড়ের গল্প
Mar 17 at 12:03am 2,058
ভূতের উপদ্রব - গোপাল ভাঁড়ের গল্প ভূতের উপদ্রব - গোপাল ভাঁড়ের গল্প
Jan 19 at 11:30pm 3,506
দায়িত্বহীনতার পরিচয় - গোপাল ভাঁড়ের গল্প দায়িত্বহীনতার পরিচয় - গোপাল ভাঁড়ের গল্প
Jan 19 at 11:21pm 2,135
জাত কুল সব গেল - গোপাল ভাঁড়ের গল্প জাত কুল সব গেল - গোপাল ভাঁড়ের গল্প
22nd Dec 16 at 10:44pm 1,877
বুদ্ধির ঢেঁকি - গোপাল ভাঁড়ের গল্প বুদ্ধির ঢেঁকি - গোপাল ভাঁড়ের গল্প
19th Dec 16 at 11:07pm 2,228
জামা-কাপড় দিয়ে কী হবে? জামা-কাপড় দিয়ে কী হবে?
3rd Dec 16 at 4:19pm 2,800
আলোটা জ্বেলেই দেখতে পার - গোপাল ভাঁড়ের গল্প আলোটা জ্বেলেই দেখতে পার - গোপাল ভাঁড়ের গল্প
3rd Dec 16 at 12:07am 1,845

পাঠকের মন্তব্য (0)

Recent Posts আরও দেখুন

টিভিতে আজকের খেলা : ২০ অক্টোবর, ২০১৭
টিভিতে আজকের চলচ্চিত্র : ২০ অক্টোবর, ২০১৭
অভিনেত্রীর স্বামীর সঙ্গে পরকীয়া করার চেষ্টা মিয়া খলিফার
বিরামহীন ফুটবলে নিজেকে ছাড়িয়ে গেছেন মেসি
হাফিজের অ্যাকশন নিয়ে আবারও প্রশ্ন
আজকের রাশিফল : ২০ অক্টোবর, ২০১৭
আজকের এই দিনে : ২০ অক্টোবর, ২০১৭
স্বপ্নে রোজা রাখা ও ঈদ পালন করতে দেখলে কী হয়?