JanaBD.ComLoginSign Up

অসুস্থ লিভারের লক্ষণগুলো জেনে নিন

সাস্থ্যকথা/হেলথ-টিপস Thu at 5:20pm 235
অসুস্থ লিভারের লক্ষণগুলো জেনে নিন

মানব দেহের গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গগুলোর মধ্যে লিভার অন্যতম। যার কাজ হলো দেহে প্রবেশ করা টক্সিন বা বিষ বর্জ্যে রূপান্তরিত করা।

তবে বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে লিভারের কর্মক্ষমতা কমে আসতে থাকে। অথবা কোনো ভাইরাস বা রোগের কারণেও লিভারের কার্যক্ষমতা কমে আসে। ফলে দেহ থেকে যথাযথভাবে টক্সিন বের করে দেওয়ায়ও অক্ষম হয়ে পড়ে লিভার।

লিভার প্রাকৃতিকভাবেই একটি চর্বিবহুল অঙ্গ। আর লিভারই মূলত চর্বি হজমের কাজ করে। তাই যখন এটি ঠিক মতো কাজ করবে না তখন চর্বিগুলো অন্ত্র থেকে পিত্ত হয়ে ফের লিভারে এসে জমা হবে। ফলে শরীরে দেখা দেয় নানা সমস্যা।

তবে আর দেরি না করে চলুন জেনে নেই অসুস্থ লিভারের লক্ষণগুলো সম্পর্কে।

১. ক্রমাগত অবসাদ
দেহে টক্সিন জমা হলে তা মাংসপেশির টিস্যুর বিপাকীয় প্রক্রিয়ায় বাধার সৃষ্টি করে।

যা থেকে আবার ব্যাথা এবং শারীরিক অবসাদও সৃষ্টি হতে পারে। ক্লান্তি থেকে মেজাজ খিটখিটে হওয়া, মানসিক অবসাদ এবং ক্ষোভের বিস্ফোরণের মতো সমস্যাও তৈরি হতে পারে। লিভার ভালো না থাকার শীর্ষ লক্ষণগুলোর একটি এটি।

২. দুর্গন্ধযুক্ত নিঃশ্বাস
মুখের স্বাস্থ্য ভালো থাকার পরেও যদি আপনার নিঃশ্বাসের সঙ্গে দুর্গন্ধ বের হয় তাহলে বুঝবেন যে আপনার লিভারের কোনো সমস্যা আছে। লিভারের স্বাস্থ্য ভালো না থাকার একটি অন্যতম লক্ষণ এটি।

৩. অকারণে ওজন বেড়ে যাওয়া
লিভার যেহেতু চর্বি হজমের জন্য প্রধানত দায়ী সেহেতু এটি যথাযথভাবে কাজ না করলে দেহে চর্বি জমতে থাকে। যার ফলে ব্যাখ্যাতীতভাবে অকারণে ওজন বাড়তে থাকে।

৪. ব্রণ
লিভারে জমা হওয়া টক্সিন দেহে হরমোনের ভারসাম্য নষ্ট করতে যারে। যা থেকে ত্বকে ব্রণ সৃষ্টি হতে পারে। কার্যক্ষমতা হারানো লিভারের কারণে সৃষ্ট ত্বকের এই সমস্যা ততক্ষণ পর্যন্ত যাবে না যতক্ষণ না পুনরায় লিভারের কার্যক্ষমতার উন্নতি ঘটানো হবে।

৫. অ্যালার্জি
লিভার ভালো থাকলে তা এমন সব অ্যান্টিবডি তৈরি করে যেগুলো অ্যালার্জেন বা অ্যালার্জি সৃষ্টিকারী উপাদানগুলোকে আক্রমণ করে ধ্বংস করে। কিন্তু লিভারের কার্যক্ষমতা কমে গেলে দেহ ওই অ্যালার্জি সৃষ্টিকারী উপাদানগুলোকে জমা করতে থাকে। এর প্রতিক্রিয়ায় আবার দেহ হিস্টামিন উৎপাদন করতে থাকে যা অ্যালার্জি সৃষ্টিকারক উপাদানগুলো দূর করতে কাজ করে। কিন্তু অতিরিক্ত হিস্টামিন উৎপাদন হলে আবার চুলকানি, ঝিমুনি এবং মাথা ব্যথা হতে পারে।

৬. অতিরিক্ত ঘাম বের হওয়া
বেশি বেশি কাজ করার কারণে লিভারের কার্যক্ষমতা কমে যায় এবং সেটি উত্তপ্ত হয়ে ওঠে। তখন লিভার দেহের অন্যান্য অঙ্গেও তাপ ছড়িয়ে দেয় এবং অতিরিক্ত ঘাম বের করার মাধ্যমে লিভার নিজেকে ঠাণ্ডা করে।

ফ্যাটি লিভার রোগের চিকিৎসা: ফ্যাটি লিভার রোগ সারানো সম্ভব শুধুমাত্র যথাযথ স্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাসের মাধ্যমে। ড্যান্ডেলিয়ন বা ডেইজি জাতীয় হলুদ ফুলের গাছের মূল, কলা, মিষ্টি আলু, যকৃত এবং আদা ফ্যাটি লিভার রোগ দূরীকরণে বেশ কার্যকর।

Googleplus Pint
Like - Dislike Votes 3 - Rating 6.7 of 10
Relatedআরও দেখুনঅন্যান্য ক্যাটাগরি
রক্তস্বল্পতা দূর করে যেসব খাবার রক্তস্বল্পতা দূর করে যেসব খাবার
Yesterday at 6:38pm 157
হঠাৎ মাথাব্যথায় যা করবেন হঠাৎ মাথাব্যথায় যা করবেন
Yesterday at 3:48pm 207
হার্ট ভাল রাখতে ৪টি জরুরি বিষয় হার্ট ভাল রাখতে ৪টি জরুরি বিষয়
Mon at 11:02pm 213
আলুর খোসার এত গুণ! আলুর খোসার এত গুণ!
Mon at 8:06pm 214
ইসবগুলের ভুসির যত গুণ ইসবগুলের ভুসির যত গুণ
Mon at 6:27pm 256
লিভার সুস্থ রাখবে তিন খাবার লিভার সুস্থ রাখবে তিন খাবার
Mon at 6:10pm 163
অ্যাসিডিটি বেড়ে যাওয়ার ১০ কারণ অ্যাসিডিটি বেড়ে যাওয়ার ১০ কারণ
Sun at 9:15pm 235
ঘুমের ওষুধে ভরসা! রাতে জাস্ট একটা কলা ঘুমের ওষুধে ভরসা! রাতে জাস্ট একটা কলা
Sun at 2:43pm 187

পাঠকের মন্তব্য (0)

Recent Posts আরও দেখুন

লম্বা চুলের জন্য...
বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে হল্যান্ড-পিএনজি
ব্যাটিংয়ে শীর্ষে এনামুল
ফিফার বর্ষসেরা খেলোয়াড় রোনালদো!
জানেন কি, বলিউডের কোন গায়কের অনুরাগী কোহলি?
স্টেডিয়াম নয়, যেন পাড়া-গায়ের কোনো এক ধানখেতে খেলছে বাংলাদেশ!
রেসিপি: সুস্বাদু বাদামের হালুয়া
পিকেকে কথা কম বলতে বললেন মেসি