JanaBD.ComLoginSign Up
JanaBD.Com অর্থাৎ এ সাইটে টপিক এবং এসএমএস পোস্ট করার নিয়মাবলী

স্বপ্নীল নরক - প্রথম পর্ব

জীবনের গল্প 6th May 16 at 6:25pm 504
Googleplus Pint
স্বপ্নীল নরক - প্রথম পর্ব

-"উফ্...ওই পোলা এইভাবে মায়ের পেডে কেউ লাত্থি মারে? মায়ের বুঝি কষ্ট লাগে না?"

গভীর মমতায় নিজের ফুলে ওঠা পেটে হাত বুলাতে বুলাতে কথাগুলো বলে কুসুম।মুখে একটা প্রশ্রয়ের ভাব নিয়ে কান খাড়া করে অপলক চোখে তাকিয়ে থাকে তার পেটের দিকে।তার গর্ভের সন্তান কি বলে তা শোনার জন্য।এটা তার একটা খেলা।গত ক'মাস ধরে সে নিয়মিত এই খেলা খেলে আসছে।সে আপন মনে তার ছেলের সাথে কথা বলে।তার ছেলেও তার সাথে কথা বলে।কুসুম এখনও উৎসুক চোখে তাকিয়ে আছে তার ছেলের মুখ থেকে কিছু শোনার জন্য।

কোন উত্তর পায় না সে।

-"কিরে ব্যাটা কথা বলস না ক্যান?রাগ হইছস্?না ভুখ লাগছে? লাগারইতো কথা।সকাল থাইক্যাতো তোরে কোন খাওন দেই নাই।কেমনে দিমু?

সকাল থাইক্যাতো আমি নিজেই কিছু খাই নাই। তুই খাইবি কোন থাইক্যা?"
আপন মনে কথা বলতে থাকে কুসুম।এবার আধশোয়া থেকে আস্তে আস্তে উঠে বসে সে।ঘাড় ঘুরিয়ে তাকাতেই সকালের ছেলেটাকে দেখতে পায় সে।ছেলেটা ওর থেকে একটু দূরে ওভারব্রিজটার একটা রেলিঙের পাশে বসে আছে।তার সামনে দুইটা প্যাকেট রাখা।সকালে যখন কুসুম মগবাজারের এই ফুটওভারব্রিজটার উপর আসে তার কিছুক্ষণ পর সে ছেলেটাকে দেখে।ছেলেটা এখন যেখানে আছে সেখান থেকে বসে বসে তাকে দেখছিল।আর কুসুম যতবারই তার গর্ভের সন্তানের সাথে কথা বলছিল ততবারই সে মিটিমিটি হেসেছে।দুপুরে কুসুম আর ছেলেটাকে দেখেনি।এখন আবার প্যাকেট দুইটা নিয়ে বসে আছে।সকালে তার হাতে প্যাকেটগুলো ছিল না।

কুসুমের এখন প্রায় সাড়ে আটমাস চলছে।সে জানে না তার গর্ভের সন্তান ছেলে না মেয়ে।কিন্তু সে ধরেই নিয়েছে তার ছেলেই হবে।তার একটা ছেলের খুব শখ!

Md Sobuj Ahmed - MYsmsBD

তার একটা ছেলে আছে।সে যখন তার আদরের ধন সোনার টুকরা ছেলেটাকে ঘরে একা রেখে বাথরুমে গোসল করতে গিয়েছে তার বাবুটা তখন তারস্বরে চিৎকার করছে।সে গোসল রেখে ভেজা কাপড়েই দৌঁড়ে বের হয়ে এসেছে।ছেলেটা যখন একটু বড় হল,যখন হাটতে শিখলো তখন তার আঁচল ধরে ধরে সে যেদিকে যায় সেদিকে যাচ্ছে।আবার কোন এক ঝুম বর্ষণের দিনে সে আর তার স্বামী মাঝখানে তার ছেলেটাকে বসিয়ে তাদের ঘরে বাংলা সিনেমা দেখছে।

এরকম স্বপ্ন সে তার উনিশ বছরের জীবনে বুঝতে শেখার পর থেকে কতবার যে দেখেছে তার কি কোন ইয়ত্তা আছে?নিশি কিংবা জাগরণ সেখানে কোন ব্যবধান তৈরী করতে পারেনি!

স্বামীর কথা মনে হতেই কুসুমের মন খারাপ হয়ে গেল।

"আহা...বেচারা এই রইদের মইধ্যেও রিকশা চালাইতাছে।কোন সময় যে খাইতে যাইব।তার নতুন বউ কি তারে ঠিকমত খাইতে দিতে পারব?ওই মাইয়া কি আর মানুষটার পছন্দ-অপছন্দ জানে?"

মনে মনে ভাবল কুসুম।নিজের অজান্তেই তার ভেতর থেকে একটা দীর্ঘশ্বাস বের হয়ে আসলো।

ওই ছেলেটা এখনও তার দিকে তাকিয়ে আছে।নয় দশ বছর বয়স হবে ছেলেটার।পড়নে একটা ছেঁড়া লাল টিশার্ট আর ময়লা একটা প্যান্ট। উস্কখুস্ক চেহারা।

কুসুম ছেলেটাকে ডাকল-

-"এই পোলা এইদিকে আয়।" ছেলেটা গুটিগুটি পায়ে কুসুমের দিকে আসছে। তার হাতে প্যাকেট দুইটা।

-"ডাকেন ক্যান?" কুসুমের সামনে এসে দাঁড়িয়েছে ছেলেটা।
কুসুম বলল-

-"তোর কোন কাম-কাজ নাই?এইখানে সারাদিন ধইর্যা দাঁড়াইয়া আছস। ঘরে যাস্ না ক্যান?"

-"আমার ঘর নাই।

-"ঘর নাই?তুই থাকস কই,তোর বাপ-মা কই?"

-"আমার বাপ-মা নাই।" স্পষ্ট উত্তর দেয় ছেলেটা।

এই ছেলে রাস্তার ছেলে বুঝাই যাচ্ছে।এদের যেমন ঘর থাকে না, তেমনি অনেকের বাবা মাও থাকে না।আর থাকলেও সন্তানের খোঁজ তারা রাখে না।

এই বাচ্চাগুলো সারাদিন পথে পথে কাজ করে আর রাতে ক্লান্ত হয়ে এই শহরের কোন এক ফুটপাতে কিংবা ওভারব্রিজে কিংবা রেলস্টেশনে শুয়ে পড়ে।

এ পৃথিবী বড় বড় শহর বন্দরে এদের খোলা জায়গায় শোয়ার সুযোগ দিয়ে একান্ত আলিঙ্গনে নিয়েছে ঠিকই কিন্তু ছাদের নিচে চার দেয়ালের ছোট্ট একটা ঘরে মাথা গোঁজার ঠাঁই করে দিতে নারাজ।এরা সেই স্পর্ধাও দেখায় না!

কুসুম মায়াভরা চোখে তাকিয়ে আছে ছেলেটার দিকে।তার খুব মায়া লাগছে ছেলেটার জন্য।হঠাৎ করে ছেলেটা তার হাতের একটা প্যাকেট কুসুমের দিকে বাড়িয়ে দিয়ে বলল-

-"এইডা লও।তোমার লাইগ্যা আনছি।"

-"এইডা কি?"

-" বিরানী।পাশেই একটা বাসায় কুলখানি আছিল।তোমার কথা কইয়া এক প্যাকেট নিয়া আসছি।তুমিতো মনে হইতাছে সকাল থাইক্যা কিছু খাও নাই?"

কুসুমের চোখ ভিজে উঠলো।নিতান্ত অপরিচিত এই ছেলেটা তার জন্য কি মমতাই না দেখাচ্ছে।সে হাত বাড়িয়ে প্যাকেটটা নিল।

-"তুমি খাও।আমি নিচ থাইক্যা তোমার জইন্য পানি নিয়া আসতাছি।"
এইটুকু বলেই ছেলেটা নিচে ওভারব্রিজের সিঁড়ি ধরে নামতে শুরু করল।কুসুমের চোখে পানি চলে আসলো।সে প্যাকেট খুলে গোগ্রাসে গিলতে লাগলো। তার প্রচণ্ড ক্ষিধে পেয়েছিল।তাছাড়া তার গর্ভের সন্তানটারও তো খাবার প্রয়োজন। পানি নিয়ে আসার পর কুসুম ছেলেটার নাম জেনে নিল।ওর নাম রাজু।

খুব তারাতারি ২য় পর্ব আসছে

Googleplus Pint
Like - Dislike Votes 35 - Rating 5 of 10
Relatedআরও দেখুনঅন্যান্য ক্যাটাগরি
আমার দ্বিতীয় বাচ্চা আমার দ্বিতীয় বাচ্চা
24th Dec 17 at 3:03pm 1,921
দ্য লিটিল বয় অ্যান্ড দ্য ওল্ড ম্যান দ্য লিটিল বয় অ্যান্ড দ্য ওল্ড ম্যান
5th May 17 at 5:45pm 3,816
এ.পি.জে আব্দুল কালামের জীবন থেকে নেয়া একটি অসাধারন গল্প এ.পি.জে আব্দুল কালামের জীবন থেকে নেয়া একটি অসাধারন গল্প
17th Mar 17 at 12:13am 4,832
বসন্ত - জীবনের গল্প বসন্ত - জীবনের গল্প
18th Oct 16 at 5:34pm 3,423
নক্ষত্রের গল্প নক্ষত্রের গল্প
9th Sep 16 at 9:37am 3,300
তুই ফেলে এসেছিস কারে মন তুই ফেলে এসেছিস কারে মন
1st Sep 16 at 8:35am 3,442
ছুঁয়ে জোছনার ছায়া ছুঁয়ে জোছনার ছায়া
19th Aug 16 at 10:35pm 2,136
দুইবোনের আবদার দুইবোনের আবদার
12th Jun 16 at 12:37pm 3,306

পাঠকের মন্তব্য (0)

Recent Posts আরও দেখুন
১০০ কোটির মাইলফলকের পথে আলিয়ার 'রাজি'১০০ কোটির মাইলফলকের পথে আলিয়ার 'রাজি'
Yesterday at 10:39pm 96
বলিউডের ওয়ান্ডার ওম্যান হচ্ছেন দীপিকা!বলিউডের ওয়ান্ডার ওম্যান হচ্ছেন দীপিকা!
Yesterday at 10:37pm 93
শুধু প্রতিনিধিত্ব নয়, লর্ডসে ভালো খেলতে চান তামিমশুধু প্রতিনিধিত্ব নয়, লর্ডসে ভালো খেলতে চান তামিম
Yesterday at 10:26pm 170
ফিক্সিংয়ে অভিযুক্ত গলের কিউরেটরফিক্সিংয়ে অভিযুক্ত গলের কিউরেটর
Yesterday at 10:23pm 92
শিরোপা জিতলেই এলিট ক্লাবে ঢুকবেন রোনালদোশিরোপা জিতলেই এলিট ক্লাবে ঢুকবেন রোনালদো
Yesterday at 10:20pm 78
রশিদকে জাতীয় দলে চায় ভারত! নাগরিকত্ব দেওয়ার দাবি!রশিদকে জাতীয় দলে চায় ভারত! নাগরিকত্ব দেওয়ার দাবি!
Yesterday at 10:16pm 193
আজকের রাশিফল : ২৭ মে, ২০১৮আজকের রাশিফল : ২৭ মে, ২০১৮
Yesterday at 10:10pm 54
আজকের এই দিনে : ২৭ মে, ২০১৮আজকের এই দিনে : ২৭ মে, ২০১৮
Yesterday at 10:07pm 25