JanaBD.ComLoginSign Up

Internet.Org দিয়ে ফ্রিতে ব্রাউজ করুন আমাদের সাইট :) Search করুন , "জানাবিডি ডট কম" পেয়ে যাবেন ।

সুস্থ ও খুশি থাকতে এই ‘হেলথ টিপস’ অবশ্যই পড়ুন

সাস্থ্যকথা/হেলথ-টিপস 27th May 2016 at 9:00am 266
সুস্থ ও খুশি থাকতে এই ‘হেলথ টিপস’ অবশ্যই পড়ুন

শরীর আসলে একটি যন্ত্রের মতো। কাজ করতে করতে যন্ত্রে যেমন নানাবিধ সমস্যা হতে পারে, ঠিক সেভাবেই জীবন কাটাতে গিয়ে শরীরও নানা সময়ে খারাপ হতে পারে, বিদ্রোহ করতে পারে। এটা অস্বাভাবিক কিছু নয়। মানুষ মাত্রই কোনও না কোনও বয়সে এসে শরীরে সমস্যা হতে পারে। খুব গুরুতর কোনও অসুখ হলে তা সারাতে বিশেষজ্ঞদের কাছে যাওয়া প্রয়োজন। তবে কিছু সমস্যা তা সারিয়ে নেওয়ারও নানা পথ রয়েছে। তবে তার আগে পুষ্টিকর ডায়েট, নিয়মিত শরীরচর্চা, শরীর, ত্বক ও চুলের নিয়মিত পরিচর্যা করা প্রয়োজন। তাহলে নানা সমস্যা থেকে দূরে থাকা সম্ভব। যদি তারপরেও কোনও সমস্যা হয় তাহলে তা থেকে দূরে থাকতে জেনে নিন নিচের লেখায় দেওয়া হেলথ টিপসগুলি-

প্রথম টিপস
যদি সারাদিনের ক্লান্তির পরে হাই তোলা দূর করতে চান তাহলে এক গ্লাস ঠান্ডা জল ধীরে ধীরে পান করে কয়েকবার গভীর শ্বাস নিন। এতে হাই তোলা বন্ধ হবে ও আপনি তরতাজা অনুভব করবেন।
দ্বিতীয় টিপস
ডান হাত মুঠো করে ছবিতে দেখানো পদ্ধতিতে বাম হাতের কব্জিতে চাপ দিন। এতে বমি ভাব বা গা গুলিয়ে ওঠা কমবে।
তৃতীয় টিপস
গলা খুসখুস করলে বা গলায় অস্বস্তি হলে কানের পিছনের অংশ ধীরে ধীরে চুলকাতে থাকুন। এতে গলার মাংসপেশীর টান ভাব কমে গিয়ে নমনীয় হবে ও কাশি কমবে।


চতুর্থ টিপস
অনেক সময়ে হাত বেশিক্ষণ চাপা থাকলে অসাড় হয়ে যায়। সেক্ষেত্রে ঘাড় এদিক-ওদিক ঘুরিয়ে নিন। কারণ ঘাড়ের নার্ভের সঙ্গে হাতের নার্ভের সরাসরি যোগ রয়েছে। এর ফলে হাতের অসাড়তা কেটে যাবে।

পঞ্চম টিপস
যদি কোনও কারণে আপনি দুঃখী হন বা অবসাদে ভোগেন তাহলে কলম বা পেনসিলের পিছনের অংশ ধীপে ধীরে চিবান। এতে মুখের ভাবটা দেখতে হাসি হাসি হবে। ফলে শরীরে আনন্দ উদ্দীপক হরমোন সেরোটোনিন ও ডোপামাইন নিঃসৃত হবে যা মস্তিষ্ককে সঙ্কেত পাঠাবে ও মন ভালো করবে।

ষষ্ঠ টিপস
যদি অবিরত হেঁচকি উঠতে থাকে তাহলে এক গ্লাস পানি নিন। সোজা হয়ে উঠে দাঁড়ান। এরপরে পা দু’দিকে দিয়ে মাটির সমান্তরালভাবে সামনে ঝুঁকে নিন। এই অবস্থায় পানি খান। এতে হেঁচকি সঙ্গে সঙ্গে কমবে।

সপ্তম টিপস
বুক জ্বালা বা অ্যাসিডিটি হলে নিজের বাম দিকে শুয়ে পড়ুন। এর ফলে অ্যাসিড আপনার পেট থেকে অন্য অংশে ছড়িয়ে পড়তে পারবে না।

Googleplus Pint
Like - Dislike Votes 4 - Rating 5 of 10
Relatedআরও দেখুনঅন্যান্য ক্যাটাগরি

পাঠকের মন্তব্য (0)